July 17, 2024, 3:27 pm

বগুড়া শিবগঞ্জ পৌরসভার উপ-নির্বাচনকে ঘিরে ৩টি ব্যক্তিগত অফিস ভাংচুর, আহত ১১ জন।

Reporter Name
  • Update Time : মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০২৪
  • 35 Time View

মোঃ জান্নাতুল নাঈম
বগুড়া শিবগঞ্জ প্রতিনিধিঃ

বগুড়ার শিবগঞ্জ পৌরসভার উপ-নির্বাচনকে সামনে রেখে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া সংঘর্ষে উভয়পক্ষের ব্যক্তিগত অফিসসহ ৪টি মোটর সাইকেল ভাংচুর উভয় পক্ষের আহত ১১। মুর্হুর্তেই শিবগঞ্জের সমস্ত দোকানপাট বন্ধ হয়ে যায়।
জানা গেগে গত শনিবার রাত ৮টা দিকে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ,ভাইস চেয়ারম্যান ও পৌর মেয়র প্রার্থী রিজ্জাকুল রহমান রাজুর সমর্থনে এক বিক্ষোভ মিছিল পৌর শহর প্রদক্ষিণ শেষে মিছিলটি থানা মোড় থেকে সাথী সিনেমা হল পর্যন্ত যাওয়ার পর ফেরার পথে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক পৌর মেয়র তোহিদুর রহমান মানিকের ব্যক্তিগত অফিসের সামনে এলে উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে এবং তার ব্যক্তিগত অফিসে ইট,পাটকেল নিক্ষেপ করলে পরিস্থিতি উত্তেজনা সৃষ্টি হয়। এসময় সাবেক মেয়র তৌহিদুর রহমান মানিকের সমর্থিত স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা দোয়েল মোটর সাইকেল যোগে অফিসে আসার সময় তার মোটর সাইকেল ভাংচুর ও তাকে মারপিট করে গুরুত্বর আহত করে। অপর আহতরা হলেন উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি আবু রায়হান, ছাত্রলীগ নেতা রাকিব হাসান, হোসেন আলী, হাসান আলী, শ্রমিক লীগ নেতা মাসুদ মিয়া, মজনু মিয়া। মেয়র প্রার্থী রিজ্জাকুল রহমান রাজুর সমর্থিত গৃহ-নির্মাণ শ্রমিক কল্যাণ সমিতির সভাপতি আশরাফুল ইসলাম, ছাত্রলীগ নেতা শাকিল আহম্মেদ, রাসেল আহম্মেদ,ওহী আহত হয়। রাত ৯টা দিকে পৌর মেয়র প্রার্থী রিজ্জাকুল রহমান রাজুর ব্যক্তিগত অফিসে গ্লাসের দরজা ও ২টি মোটর সাইকেল ভাংচুর করে। রাত ১০টা দিকে সাবেক উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আজিজুল হকের ব্যক্তিগত অফিসের গ্লাসের দরজা ভাংচুর করে। এব্যাপারে উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব মোস্তাফিজার রহমান মোস্তা বলেন, পৌর মেয়র প্রার্থী রাজুর সমর্থিত লোকজন মিছিল নিয়ে এসে সাবেক মেয়র মানিকের ব্যক্তিগত অফিসে ইট,পাটকেল নিক্ষেপ ও হামলা করলে এপরিস্থিতি সৃষ্টি হয়। পৃথক দুটি অফিসের হামলা ব্যাপারে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন তারা নিজেরা নিজেদের মোটর সাইকেল ও ব্যক্তি অফিস ভেঙ্গে আমাদের উপর দোষ চাপিয়ে দিচ্ছে। এব্যাপারে পৌর মেয়র প্রার্থী রাজুর সাথে মুঠোফোনে কথা বললে তিনি বলেন গত শনিবার বিকালে ৫নং ওয়ার্ডে আমার সমর্থিত নেতাকর্মীরা মোটর সাইকেল ও ইজি বাইক নিয়ে গণসংযোগ করতে গেলে প্রতিপক্ষের লোকজন তাতে বাধা সৃষ্টি করে। শুধু তাই নয় সন্ধ্যার পর প্রতিপক্ষের সমর্থিতরা মোটর সাইকলে শোভা যাত্রা নিয়ে আমার ব্যক্তিগত অফিসের সামনে এসে শ্লোগান দিতে থাকে। তিনি আরো বলেন প্রতিপক্ষের সমর্থিতরা আমার ব্যক্তিগত কার্যালয়ের দরজা, মোটর সাইকেল ও সাবেক আওয়ামীলীগের সভাপতির কার্যালয়ে দরজা ভাংচুর করে। এখবর পৌর এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে মানিকের শত শত সমর্থকরা বঙ্গবন্ধু স্কয়ার চত্বরে এসে সমাবেত হয় এবং রাজু সমর্থকদেরকে ধাওয়া করলে তারা ঘটনাস্থল ত্যাগ করে। এব্যাপারে থানা অফিসার ইনর্চাজ আব্দুর রউফ বলেন, এঘটনায় কোন পক্ষেই থানায় অভিযোগ দাখিল করেনি। তবে গত শনিবার রাতের ঘটনা দুঃখজনক। পরিস্থিতি শান্ত করার লক্ষে উভয়পক্ষকে ছত্রভঙ্গ করে দেওয়া হয়েছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category